bangla font problem

    deer.jpg
    Friday, 27 January 2017 09:49

    বেসরকারি টিভি চ্যানেল এটিএন নিউজের দুই সংবাদকর্মীর ওপর হামলার ঘটনায় অভিযোগ নিয়েছে পুলিশ। তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির ডাকা বৃহস্পতিবারের হরতালের সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে পুলিশের হামলার শিকার হন দুই সংবাদকর্মী।
    এটিএন নিউজের জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ইমরান হোসেন ও শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক অভিযোগ নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।এটিএন নিউজের পক্ষ থেকে করা ওই অভিযোগে বলা হয়, গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল থেকে তেল গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির ডাকা আধাবেলার হরতালের খবর সংগ্রহ করছিলেন দুই সংবাদকর্মী। হরতালের শেষ দিকে বেলা পৌনে দুইটার দিকে এক ব্যক্তিকে ধরে নিয়ে যাচ্ছিলেন কয়েকজন পুলিশ সদস্য। ওই সময় ক্যামেরাপারসন আবদুল আলীম সেই দৃশ্য ক্যামেরায় ধারণ করছিলেন। কিছু বুঝে ওঠার আগেই বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য তাঁকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করেন। এরপর আলীমকে কিল, ঘুষি, চড়, থাপ্পড় ও রাইফেলের বাট দিয়ে পেটান। ক্যামেরা কেড়ে নেওয়ারও চেষ্টা চালান। আলীমকে মারধর করতে দেখে ওই চ্যানেলের নিজস্ব প্রতিবেদক কাজী ইহসান বিন দিদার এগিয়ে যান। পুলিশ তাঁর ওপরও কিল, ঘুষি, চড়, থাপ্পড় ও রাইফেলের বাট দিয়ে হামলা চালায়। একপর্যায়ে তাঁদের দুজনকে কয়েকজন পুলিশ সদস্য মিলে লাথি মারতে মারতে, টেনেহিঁচড়ে শাহবাগ থানার নিয়ে যায়।
    অভিযোগে আরও বলা হয়, থানার ভেতরেও তাঁদের মারধর করেন পুলিশ সদস্যরা। এটিএন নিউজের ক্যামেরা ভাঙচুর করেন। এ সময় ঘটনাস্থলে দায়িত্ব পালনরত কয়েকজন সহকর্মী তাঁদের উদ্ধারের চেষ্টা করেন। পরে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তারা আলীম ও দিদারকে উদ্ধার করেন। পুরো ঘটনার ভিডিও চিত্র ও স্থির চিত্র সেখানে উপস্থিত সাংবাদিকদের ক্যামেরায় ধারণ করা হয়। হামলাকারী পুলিশ সদস্যদের মধ্যে শাহবাগ থানা-পুলিশের উপপরিদর্শক (এএসআই) এরশাদ মণ্ডল, পুলিশ কনস্টেবল মোখলেছুর, পুলিশ কনস্টেবল হোসেন কবির ও পুলিশ কনস্টেবল সবুজ খানকে শনাক্ত করা যায়। এ ছাড়া আরও অন্তত ১০ থেকে ১২ জন পুলিশ সদস্যকে প্রাথমিকভাবে শনাক্ত করা সম্ভব হয়।

     

    আলীম ও দিদার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।

    Media

    Thursday, 26 January 2017 19:33

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উপদেষ্টা সদস্য হলেন নাসির উদ্দিন

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উপদেষ্টা সদস্য হলেন নাসির উদ্দিন

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- মঠবাড়িয়া উপজেলার সর্ববৃহৎ অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" (LOVE FOR CHILDREN) এর উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হিসেবে মনোনীত হলেন সংগঠনটির কার্যনির্বাহী সংসদের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোঃ নাসির উদ্দিন হাওলাদার। তিনি প্রবাসে থাকাকালীন সময়ে সংগঠনটির কার্যনির্বাহী সংসদের সহ সভাপতি ও ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হিসেবে দীর্ঘদিন দ্বায়িত্ব পালন...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসার কার্যনির্বাহী কমিটি বিলুপ্ত ঘোষনা।

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসার কার্যনির্বাহী কমিটি বিলুপ্ত ঘোষনা।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার সর্ববৃহৎ অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা"(Love for children) এর কার্যনির্বাহী সংসদ কমিটি বিলুপ্ত ঘোষনা করা হয়েছে। সংগঠন সূত্রে জানা যায়, কমিটির মেয়াদ গত ফেব্রুয়ারিতে শেষ হলেও করোনা পরিস্থিতির কারনে নতুন কমিটি গঠন করা হয়নি। সারা বিশ্বব্যাপী মহামারী করোনা এখন একটু নিয়ন্ত্রিত।...

    অবাঁচ্ছিত ধর্ষণ!

    অবাঁচ্ছিত ধর্ষণ!

    অবাঁচ্ছিত ধর্ষন এম.এম.মোস্তফা রহমান     এমনি ভূ-খন্ডে উন্মেষ হইলো তব লজ্জায় নতমস্তক করি মম , যথায় জননীরা দিবা নিশি অকাতরে আশ্রয়হীনা হারায় সম্ভ্রম ।  চার বছরের শিশুর যৌনি কেঁটে নরকীরা চালায় ধর্ষণ , ষাট বছরের বুড়িমাও পায়নি রেহাই এ যেন জোঁয়াড়ে হর্ষন । বিবস্ত্র করে যৌনঘাত চালায় বুনো শুয়োরের...

    মঠবাড়িয়া বিএনপির বর্ষীয়ান নেতা দেলোয়ার মুনসীর মৃত্যুবার্ষিকী পালিত

    মঠবাড়িয়া বিএনপির বর্ষীয়ান নেতা দেলোয়ার মুনসীর মৃত্যুবার্ষিকী পালিত

    নিজস্ব প্রতিনিধিঃ  মঠবাড়িয়া উপজেলা বিএনপি'র সাবেক সভাপতি মরহুম দিলোয়ার হোসেন মুনসীর ২য় মৃত্যুবার্ষিকী আজ ২৩শে সেপ্টেম্বর বুধবার দলীয় কার্যালয় যথাযথ সম্মানের সহিত পালন করা হয়।  এ উপলক্ষে আলোচনাসভা, দোয়া ও মিলাদ অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাসভায় সভাপতিত্ব করেন মঠবাড়িয়া উপজেলা বিএনপি'র ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম বাবুল। প্রধাণ অতিথি ছিলেন পিরোজপুর-৩ মঠবাড়িয়ার...

    ডাঃ রুস্তুম আলী ফরাজীর আরোগ্য কামনায় দোয়া মাহফিল

    ডাঃ রুস্তুম আলী ফরাজীর আরোগ্য কামনায় দোয়া মাহফিল

    নিজস্ব প্রতিনিধিঃ   ১২৯, পিরোজপুর (৩) মঠবাড়িয়া আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ও জাতীয় হিসাব সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি জনাব ডাঃ রুস্তুম অালী ফরাজী সাহেবের আশু রোগ মুক্তির কামনায় বহেরাতলা টু সাফা রোডস্থ নূর - ই-ক্বুবা জামে মসজিদে আজ জুম্মা নামাজবাদ দোয়া অনুষ্ঠিত হয়েছে। দোয়া অনুষ্ঠানে মসজিদ কমিটির সদস্য সহ স্থানীয় অনেক মুসল্লী...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসার পক্ষ থেকে ক্যান্সার রোগীকে সহায়তা প্রদান

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসার পক্ষ থেকে ক্যান্সার রোগীকে সহায়তা প্রদান

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ  "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" সংগঠনের পক্ষ থেকে ক্যান্সারে আক্রান্ত  দুই জন রোগীকে  সকাল ১১ টায় মঠবাড়িয়া প্রেসক্লাবে চিকিৎসা সহায়তা প্রদান করা হয়।  এ সময় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনর্চাজ আ.জ.মোঃমাসুদুজ্জামান মিলু।বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন প্রেসক্লাবে সভাপতি জাহিদ উদ্দিন পলাশ,বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হলেন মনিরুজ্জামান সবুজ।

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হলেন মনিরুজ্জামান সবুজ।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- মঠবাড়িয়ার সর্ববৃহৎ অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" (LOVE FOR CHILDREN) এর উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হিসেবে মনোনীত হলেন  জনাব মনিরুজ্জামান সবুজ। দীর্ঘদিন যাবৎ সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবী কার্যক্রম দেখে তিনি সংগঠনটির প্রতি আগ্রহী হন। তিনি সংগঠন সম্পর্কে ধারনা নেন এবং সংগঠনের সাথে জেনে শুনে বুঝে সংযুক্ত হবার...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা এর ভাইস চেয়ারম্যান হলেন মোঃ আবু জাফর শেখ।

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা এর ভাইস চেয়ারম্যান হলেন মোঃ আবু জাফর শেখ।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার সর্ববৃহত অনলাইন সংগঠন ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনীত হলেন সংগঠনের উপদেষ্টা পরিষদের অন্যতম সদস্য সাবেক অস্থায়ী চেয়ারম্যান জনাব আবু জাফর শেখ।    সংগঠন সূত্রে জানা যায় যে, সংগঠনের প্রধান উদ্দ্যক্তা ও চেয়ারম্যান নিজ কর্ম ব্যাস্ততা ও ব্যাক্তিগত কারনে  সংগঠনের কার্যক্রমে...

    মঠবাড়িয়ায় ছাত্রলীগনেতার হাত কেটে ফেললো সন্ত্রাসীরা

    মঠবাড়িয়ায় ছাত্রলীগনেতার হাত কেটে ফেললো সন্ত্রাসীরা

    নিজস্ব প্রতিনিধিঃ  পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া পৌরশহরে মঙ্গলবার (১৮ আগষ্ট) রাতে পূর্ব বিরোধ ও মোবাইল চুরিকে কেন্দ্র করে শুভ শীল (২০) নামক এক কলেজ ছাত্রের ডান হাত কেটে বিচ্ছিন্ন করেছে সন্ত্রাসীরা।  সঙ্কটজনক অবস্থায় শুভকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তির পর গুরুতর অবস্থায় বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। শুভ পৌর শহরের ৩নং ওয়ার্ড...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ।

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা সংগঠনের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ।

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" (Love For Children)অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মঠবাড়িয়া পৌর শাখার উদ্দ্যোগে গত রবিবার মঠবাড়িয়া পৌর শহরে বিভিন্ন স্থানে করোনা জনসচেতনতা মূলক কর্মসূচীর অংশ হিসেবে মাস্ক বিতরন করা হয়৷ উক্ত অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা করেন অত্র সংগঠনের স্থায়ী পরিষদের মহাসচিব জনাব মোঃ রাহাত রেজা এবং উপদেষ্টা...

    মঠবাড়িয়ার চাঞ্চল্যকর ত্রিপল মার্ডারের প্রধান আসামী গ্রেফতার

    মঠবাড়িয়ার চাঞ্চল্যকর ত্রিপল মার্ডারের প্রধান আসামী গ্রেফতার

    নিজস্ব  প্রতিনিধিঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার ধানিসাফা ইউনিয়নে ৩০ জুলাই গভীর রাতে ত্রিপল মার্ডারের ৮ দিনের মাথায় সেই লোমহর্ষক রহস্য উদঘাটন করেছে। পিরোজপুর গোয়েন্দা শাখা ও মঠবাড়িয়া থানা পুলিশের অভিযানে গতকাল ৭ আগস্ট রাত অনুমানিক ১ ঘটিকায় হত্যার মূল পরিকল্পনাকারী মোঃ অলি বিশ্বাস (৩৮), পিং- মৃত তোজাম্বর আলী বিশ্বাস, গ্রাম- ধানিসাফা...

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর উপদেষ্টা সদস্য হলেন আরিফুল ইসলাম সোহাগ

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর উপদেষ্টা সদস্য হলেন আরিফুল ইসলাম সোহাগ

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- মঠবাড়িয়ার সর্ববৃহৎ অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" (LOVE FOR CHILDREN) এর উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হিসেবে মনোনীত হলেন বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী জনাব আরিফুল ইসলাম সোহাগ।  দীর্ঘদিন যাবৎ সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবী কার্যক্রম দেখে তিনি সংগঠনটির প্রতি আগ্রহী হন। তিনি সংগঠন সম্পর্কে ধারনা নেন এবং সংগঠনের সাথে জেনে শুনে...

    মঠবাড়িয়া ক্যান্সার আক্রান্ত শিশুকে চিকিৎসা সহযোগিতা

    মঠবাড়িয়া ক্যান্সার আক্রান্ত শিশুকে চিকিৎসা সহযোগিতা

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার ক্যান্সার আক্রান্ত শিশু আব্দুল্লাহ, পিতাঃ শাহীন মিয়া, বয়স ৮ বছর, সাং- টিকিকাটা ৭ নং ওয়ার্ড, মঠবাড়িয়া, পিরোজপুর-কে নগদ অর্থ ও নতুন পোশাক সহ খাদ্য সামগ্রী সহায়তা করলো সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" সংগঠনের পৌর শাখার সেচ্ছাসেবকদের প্রেরিত তথ্যের উপর বিবেচনায় সংগঠনের কার্যনির্বাহী সংসদ শিশুটিকে...

    মানবতার মঠবাড়িয়া সংগঠনের কমিটি গঠন

    মানবতার মঠবাড়িয়া সংগঠনের কমিটি গঠন

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ  মঠবাড়িয়া অসহায় মানুষের পাশে `মানবতার মঠবাড়িয়া` : মানব সেবাই এক মাত্র অঙ্গীকার।একঝাঁক তরুণ-তরুণীদের স্বেচ্ছায় এগিয়ে আসা মহৎ কর্মপ্রচেষ্টার আলোকে বাস্তব রূপ দান করা প্রতিষ্ঠানের নাম 'মানবতার মঠবাড়িয়া 'ভালোবাসাটাকে ছড়িয়ে দিতে সবার আগে বিবেচ্য অনুষঙ্গ হল মানুষ।তাই অসহায় মানুষকে সুবিধা দিতে এ গ্রুপের যাত্রা।   বর্তমান ঘুণে ধরা সমাজে...

    "ভালোবাসার মঠবাড়িয়া" ফেসবুক গ্রুপ কন্টেস্ট এর বিজয়ী ঘোষনা

    "ভালোবাসার মঠবাড়িয়া" ফেসবুক গ্রুপ কন্টেস্ট এর বিজয়ী ঘোষনা

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে মঠবাড়িয়া উপজেলা ভিত্তিক "ভালবাসার মঠবাড়িয়া" গ্রুপে ৭ দিন ব্যাপী শাড়ী-পাঞ্জাবী,চুড়ি-সানগ্লাস পরিহিত ছবির প্রতিযোগিতাত ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে। প্রতিযোগিতায় সর্বোচ্চ লাইক-কমেন্টের ভিত্তিতে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে।অনুষ্ঠানে যারা বিজয়ী হয়েছেন তারা হচ্ছেন- ছেলেদের মধ্য থেকে বিজয়ী হয়েছেন, ১) মোহাম্মাদ সোহেল (প্রথম স্থান)। ২) এইচ এম রবিউল (দ্বিতীয়...

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হলেন শিবাজী মজুমদার সিবু।

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য  হলেন শিবাজী মজুমদার সিবু।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" সংগঠনের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য হিসেবে মনোনীত হলেন সংগঠনের প্রতিষ্ঠাকালীন দিক নির্দেশক মঠবাড়িয়া উপজেলা শাখার আহ্বায়ক এবং নির্বাচিত উপজেলা কমিটির তিনবারের সভাপতি বিশিষ্ট সাংবাদিক ও সমাজকর্মি জনাব শিবাজী মজুমদার সিবু। সংগঠন সূত্রে জানা যায় যে, "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা"...

    মঠবাড়িয়ায় র‍্যাবের হাতে ধর্ষক গ্রেফতার

    মঠবাড়িয়ায় র‍্যাবের হাতে ধর্ষক গ্রেফতার

    নিজস্ব প্রতিনিধি  : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার দাউদখালী ইউনিয়নের দুই সন্তানের জননী এক গৃহবধূকে ধর্ষণ মামলার দুই পলাতক আসামি মো. সালাম গাজী (৪৫) ও মো. সাইফুদ্দিন কাজী (৩১) কে শুক্রবার বিকেলে নতুন বাজার সংলগ্ন এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে বরিশাল র‌্যাব-৮ এর একটি দল।   উপজেলার দাউদখালী ইউনিয়নের দুই সন্তানের জননী এক...

    মঠবাড়িয়ায় ভুয়া ডাক্তার গ্রেফতার

    মঠবাড়িয়ায় ভুয়া ডাক্তার গ্রেফতার

    নিজস্ব প্রতিনিধি: পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলায় আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে জেলা ম্যাজিস্ট্রেট পীযুষ কুমার চৌধুরী এবং RAB-8 এর অভিযানে তিনটি ক্লিনিককে অর্থদণ্ড এবং দুইজনকে কারাদণ্ড করা হয়েছে। উপজেলার ধানী সাফায় হাজী আব্দুর রাজ্জাক সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ভুয়া ডাক্তার আমির হোসেন ভূঁইয়া (৪৫) কে ৬ মাসের কারাদণ্ড, মঠবাড়িয়া পৌর শহরের...

    মঠবাড়িয়ায় করোনা উপসর্গ নিয়ে শিক্ষিকার মৃত্যু

    মঠবাড়িয়ায় করোনা উপসর্গ নিয়ে শিক্ষিকার মৃত্যু

    নিজস্ব প্রতিনিধি :পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় মনিরা বেগম (৪০) নামে এক স্কুল শিক্ষিকার করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু ঘটেছে। আজ বৃহস্পতিবার সকাল দশটার দিকে মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এর জরুরী বিভাগে চিকিৎসাধিন অবস্থায় তার মৃত্যু ঘটে।এ নিয়ে উপজেলায় এ পর্যন্ত ৬ জনের করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু ঘটেছে।মৃত স্কুল শিক্ষিকা মঠবাড়িয়ার ১১১ নম্বর সরকারী...

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা"এর মঠবাড়িয়া পৌর কমিটি গঠন।

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা"এর মঠবাড়িয়া পৌর কমিটি গঠন।

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ- অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মঠবাড়িয়া পৌর শাখা'র নবগঠিত কমিটি ঘোষণা করেছে সংগঠনটির কার্যনির্বাহী সংসদ। ০৯/০৭/২০২০-ইং তারিখ বৃহস্পতিবার,সংগঠনের লিখিত চিঠিতে সভাপতি/সম্পাদকের স্বাক্ষরিত অত্র কমিটি গণমাধ্যম ফেসবুকে প্রকাশ করছে।    ২০২০ ইং সালের মঠবাড়িয়া পৌর শাখার নব নির্বাচিত কমিটিতে রাজীব কুমার সাহাকে সভাপতি, বিশ্বজিৎ বিশ্বাসকে সাধারন সম্পাদক এবং সিফাত...

    মঠবাড়িয়ায় করোনা সংক্রমণের চূড়া কখন?

    মঠবাড়িয়ায় করোনা সংক্রমণের চূড়া কখন?

    ডা. ফেরদৌস ইসলামঃ   পিরোজপুর জেলার মধ্যে আমাদের মঠবাড়িয়ায় করোনা আক্রান্ত রোগীর ভয়াবহ ভাবে বেড়ে যাচ্ছে।স্বাস্থ্যবিধির কথা সবাই বার বার বলার পরও উদাসীনতার খেসারত দিতে হচ্ছে আমাদের।অনেকেই মনে করে তার করোনা হবেনা,তাই মাস্ক পড়বেননা।আর পড়লেও সঠিক নিয়ম না জানার কারণে অথবা উদাসীনতার কারণে আক্রান্ত হচ্ছেন।   এখন অনেকেই জ্বর এর কথা...

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর আজীবন সদস্য হলেন মেজবাহ উদ্দিন বাবু এবং আয়েশা সিদ্দিকা লাইজু।

    "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" এর আজীবন সদস্য হলেন মেজবাহ উদ্দিন বাবু এবং আয়েশা সিদ্দিকা লাইজু।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক সংগঠন "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা " এর সদ্য বিলুপ্ত উপজেলা শাখার সহ-সভাপতি জনাব মেজবাহ উদ্দিন বাবু এবং সদ্য বিলুপ্ত পৌর শাখার সদস্য জনাবা আয়েশা সিদ্দিকা লাইজু কে সংগঠনের আজীবন সদস্য হিসেবে মনোনীত করা হয়েছে। সংগঠন সূত্রে জানা যায়, জনাব মেজবাহ উদ্দিন বাবু মঠবাড়িয়া...

    মঠবাড়িয়ায় সেঞ্চুরির বেশি করোনা আক্রান্ত।

    মঠবাড়িয়ায় সেঞ্চুরির বেশি করোনা আক্রান্ত।

    ডা. মোঃ রাকিবুর রহমানঃ   জ্বর, কাশি, নাকে গন্ধ পাচ্ছেন না, শরীর দূর্বল লাগছে বলে ফোনে প্রচুর কল আসছে;সব ফোন রিসিভ করাও সম্ভব হচ্ছে না।     করোনা সংক্রামক তাই ছড়িয়ে পরা কমাতে চেম্বারে বা হাসপাতালে আসতে অনুৎসাহিত  করছি   । আবার ফোনেও শুনে সম্পূর্ণ চিকিৎসা দেয়া কঠিন, তাই শুধুমাত্র মঠবাড়িয়াবাসীর জন্য ...

    মঠবাড়িয়া পৌরসভায় "রেড জোন" ঘোষণা

    মঠবাড়িয়া পৌরসভায় "রেড জোন" ঘোষণা

    নিজস্ব প্রতিনিধিঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের থানাপাড়া, আজহার কলোনি ও পাথরঘাটা বাস স্ট্যান্ড অংশকে করোনা সংক্রমনের অধিক ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় তা প্রতিরোধে “রেড জোন” এর আওতায় আনা হয়েছে। ইতিমধ্যে উক্ত এলাকার চিহ্নিত করে “লাল নিশান” লাগিয়ে দিয়ে খাবারের দোকান, ওষুধের ফার্মেসি ছাড়া সকল দোকানপাট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। আজ মঠবাড়িয়া...

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা(LOVE FOR CHILDREN) এর ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন।

    ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা(LOVE FOR CHILDREN)  এর ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার প্রবাসে ও বাংলাদেশে অবস্থানরত তরুণ-যুব সমাজের উদ্যোগে মঠবাড়িয়া উপজেলার সুবিধাবঞ্চিত অনুর্ধ (১২) শিশু সেবার মহান ব্রত নিয়ে গড়ে ওঠা আস্থা, বিশ্বাস ও ভালবাসার কেন্দ্র "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা" অনলাইন ভিত্তিক অরাজনৈতিক অ-সাম্প্রদায়িক ও অলাভজনক শিশু সেবামূলক একটি সামাজিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের আজ ৪ (চার) বছর পূর্তি...

    ক্যান্সার আক্রান্ত রুবেলকে আর্থিক সহযোগিতা প্রদান।

    ক্যান্সার আক্রান্ত রুবেলকে আর্থিক সহযোগিতা প্রদান।

    নিজস্ব প্রতিবেদকঃ- পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার অনলাইন ভিত্তিক সামাজিক সেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠান "ছোট্ট মনুদের জন্য ভালবাসা"( LOVE FOR CHILDREN) এর পক্ষ থেকে মরণব্যাধি ক্যান্সারে আক্রান্ত রুবেলকে নগদ আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করা হয়। সংগঠনের কার্যনির্বাহী সংসদ সূত্রে জানা যায় যে, অনলাইন মাধ্যম ফেসবুকে রুবেলের সাহায্যের আহাজারি দেখে সংগঠনের গঠনতান্ত্রিক সিস্টেমের বাইরে থাকার পরও এই...

    ঢাকা থেকে ৩০০ কিমি সাইকেল চালিয়ে বরগুনায় করোনা রোগী

    ঢাকা থেকে ৩০০ কিমি সাইকেল চালিয়ে বরগুনায় করোনা রোগী

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ  করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এমন অসচেতনভাবে সাড়ে ৩০০ কিলোমিটার পথ সাইকেল চালিয়ে বরগুনায় আসার কথা জানতে পেরে আঁতকে উঠেছেন অনেকেই। হ্যাঁ, এমনটাই ঘটেছে। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ঢাকা থেকে সাইকেল চালিয়ে বরগুনা এসেছেন এক যুবক। গত ৭ এপ্রিল ঢাকার সাভার থেকে যাত্রা শুরু করে ১০ এপ্রিল বরগুনা সদর উপজেলার নিজ...

    পিরোজপুর জেলা লকডাউন ঘোষণা

    পিরোজপুর জেলা লকডাউন ঘোষণা

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ  করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি মোকাবিলায় পিরোজপুর জেলাকে লকডাউন (অবরুদ্ধ) ঘোষণা করা হয়েছে। জেলা প্রশাসক আবু আলী মো. সাজ্জাদ হোসেন আজ বৃহস্পতিবার রাত ১১টা ২০ মিনিটে এই ঘোষণা দেন।এই ঘোষণার ফলে পিরোজপুর জেলায় কেউ প্রবেশ কিংবা জেলা থেকে বের হতে পারবে না। জেলার অভ্যন্তরে যাতায়াতের ক্ষেত্রেও একই নিষেধাজ্ঞা থাকবে। গত...

    গত ২৪ ঘন্টায় করোনা রোগী সনাক্ত ৩৪১ || মৃত ১০ জন

    গত ২৪ ঘন্টায় করোনা রোগী সনাক্ত ৩৪১ || মৃত ১০ জন

    বিশেষ প্রতিনিধিঃ  দেশে নতুন করে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৩৪১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছেন আরও ১০ জন। এ নিয়ে করোনা শনাক্ত হয়ে দেশে মারা গেছেন মোট ৬০ জন। দেশে মোট আক্রান্ত হয়েছে ১৫৭২ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় জনের ২০১৯ নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে আছে...

    করোনা রোগীর শ্বাসকষ্ট দেখলে মানুষ বাইরে বের হবে না

    করোনা রোগীর শ্বাসকষ্ট দেখলে মানুষ বাইরে বের হবে না

    নিউইয়র্ক নগরীর ব্রঙ্কস এলাকা। জ্যাক ডি ওয়েইলার হাসপাতালের জরুরি বিভাগ। কক্ষটি ঠাসা করোনায় আক্রান্ত রোগীতে। স্বাভাবিকের চেয়ে তিন গুণ ভিড়। অক্সিজেন মাস্কের ওপর দিয়ে দেখা যায় ভয়ার্ত চোখ। শ্বাস নিতে কষ্ট হচ্ছে মানুষের। এ যেন ডুবে যাওয়ার অনুভূতি। কারও স্বজনদের প্রবেশের অনুমতি নেই সেখানে। হয়তো আর কখনো দেখা পাবেন না...

    Media

    Wednesday, 25 January 2017 18:02

    সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটনসহ অন্যদের সঙ্গে লবি করে পদ্মা সেতুতে বিশ্বব্যাংকের অর্থায়ন বন্ধ করে দেওয়া হয় বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ বুধবার জাতীয় পার্টির এ কে এম মাঈদুল ইসলামের এক সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।
    মাঈদুল ইসলাম তাঁর প্রশ্নে ড. মুহাম্মদ ইউনূসের সম্পদ ও তাঁর কার্যক্রমের বিষয়ে তদন্তের দাবি করেন।
    ড. মুহাম্মদ ইউনূসের নাম উল্লেখ না করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘দেশের কোনো এক স্বনামধন্য পত্রিকার সম্পাদক আর উনি মিলে বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করেন। যুক্তরাষ্ট্রের তৎকালীন ফরেন সেক্রেটারি হিলারি ক্লিনটনসহ সবাই লবি করে পদ্মা সেতুতে বিশ্বব্যাংকের টাকা দেওয়াটা বন্ধ করে দেন। যেখানে প্রকল্পের এক পয়সাও ছাড় হয়নি, সেখানে উল্টো দুর্নীতির অভিযোগ আনা হলো। শেষে বলা হলো দুর্নীতির ষড়যন্ত্র হয়েছে।’
    আইনের আশ্রয় নিয়ে তিনি গ্রামীণ ব্যাংকের এমডির পদ হারিয়েছেন মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা উনাকে সরাইনি। তিনি মামলায় হেরে গেছেন। মামলা করার পরামর্শদাতা ছিলেন ড. কামাল হোসেন ও তাঁর মেয়ে। আইনের কারণে উনার এমডি পদ চলে গেল। এরপর উনি আমাদের ওপর খেপে গেলেন। সেই খ্যাপাটা পড়ল পদ্মা সেতুর ওপর।’
    অন্যের অনুরোধে হিলারি আমাকে ফোন করেন
    গ্রামীণ ব্যাংক ও ড. ইউনূসের প্রসঙ্গ তুলে শেখ হাসিনা বলেন, গ্রামীণ ব্যাংক একটি বিধিবদ্ধ সংস্থা। তিনি প্রতি মাসে সরকারি বেতন নিতেন। তার প্রতি সবার দুর্বলতা ছিল বলেই তিনি যেভাবে চালান, সেভাবে চলছিল। ব্যাংকের আইন অনুযায়ী ৬০ বছর বয়স পর্যন্ত এমডি থাকা যায়। কিন্তু ওই এমডি যখন ৭০ বছর পার করেছেন, তখনো তিনি এমডি ছিলেন। বিষয়টি তাঁকে জানাতে অর্থমন্ত্রী ও আমার পররাষ্ট্র উপদেষ্টা তাঁর কাছে গিয়েছিলেন। বলেছিলেন, আপনাকে উপদেষ্টা ইমেরিটাস হিসেবে সম্মান দেব। আপনি পদটি ছেড়ে দিন। কিন্তু তিনি তা না করে মামলা করলেন। মামলায় তিনি হেরে গেলেন। দোষ পড়ল আমার ওপর। দোষটা দিলেন বিশ্বব্যাপী। তাঁর লবিস্ট আছে। অনেক টাকাপয়সা খরচা...অনেক বড় বড় জায়গা থেকে টেলিফোন এল। তাঁর অনুরোধে হিলারি ক্লিনটন আমাকে ফোন করেছিলেন। আমি বললাম, বাদ তো আমরা দিচ্ছি না। উনি মামলা করে হেরে গেছেন। আর আইনে আছে ৬০ বছর পর্যন্ত এমডি থাকতে পারেন। উনি তো আইন ভেঙে ৭০ বছর পর্যন্ত থেকে গেছেন। আদালত যে উনার কাছ থেকে অতিরিক্ত ১০ বছরের জন্য টাকা ফেরত চায়নি, সেটাই বড় কথা।’

     

    প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, ‘গ্রামীণ ব্যাংকের মাধ্যমে তিনি বিশাল অঙ্কের ‍সুদ তুলে নিয়েছেন। কিন্তু মানুষের ভাগ্যের কোনো পরিবর্তন হয়নি। এমনকি হিলারি ক্লিনটনকে যশোরে নিয়ে গিয়ে তাঁর হাত থেকে ঋষিপল্লির যাদেরকে ঋণ দেওয়া হয়েছিল, ঋণের ভারে তারা পরবর্তী সময়ে ওখানে টিকতে পারেননি। দুটি পরিবার তো খোঁজই পাওয়া যায়নি। ঋণের চাপে ভিটামাটি ছেড়ে দিয়ে এলাকা ছেড়ে চলে যেতে হয়েছে। আমি খুব আগ্রহ নিয়ে আমার এলাকায় গ্রামীণ ব্যাংকের শাখা নিলাম। সেখানেও একই ঘটনা দেখলাম। গরুর বাছুর কেড়ে নেওয়া। আমি নিজে একটি পরিবারকে ঘর করে দিয়েছিলাম। সেই ঘরও নিয়ে গেল। একজন মহিলা পাঁচ হাজার টাকা ঋণ নিল, তাঁর ঋণের বোঝা হলো ১৬ হাজার টাকা। পরে আমি নিজে টাকা দিয়ে তাঁকে ঋণমুক্ত করি।’

    এ প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা আরও বলেন, ‘১৯৯৮ সালে বন্যার সময় মানুষ টিনের চালায় আশ্রয় নেয়। সেই সময় গ্রামীণ ব্যাংকের লোক গিয়েছিল টিনের চালা খুলতে। আমরা তখন তাঁকে বললাম, আপনি সুদ নিয়ে টানাটানি করবেন না। কোনো ক্ষতি হলে আমরা দেখব। পরে এ জন্য আমরা প্রায় ৪০০ কোটি টাকা দিয়েছিলাম। গ্রামীণ ব্যাংকের সেই স্বনামধন্য ব্যক্তি পদটি হারানোর পর ব্যাংকটির সুদের হার ৪০ ভাগে ওঠে না, ওটা ২৭ ভাগের মধ্যে নির্দিষ্ট করে দেওয়া হয়েছে। আগে ঋণ দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সাপ্তাহিক কিস্তির টাকাটা কেটে নেওয়া হতো। এখন তা করা হয় না।’

    গ্রামীণফোন দরপত্রে তৃতীয় হয়েছিল, তবুও দিয়েছিলাম
    গ্রামীণফোনের লাইসেন্স সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘১৯৯৬ সালে তিনি এসে আমাকে বললেন, একটি ফোন কোম্পানি দিলে তার লভ্যাংশ গ্রামীণ ব্যাংকে যাবে। সেখান থেকে সাধারণ মানুষ ঋণসুবিধা পাবে। তখন গ্রামীণ ব্যাংকটা দাঁড়াবে। উনার কথা বিশ্বাস করেছিলাম। মোবাইল ফোনের একচেটিয়া ব্যবসা কমাতে তিনটি কোম্পানিকে অনুমতি দিলাম। গ্রামীণফোন দরপত্রে তৃতীয় হয়েছিল। তবুও আমরা তাকে দিলাম। অত্যন্ত দুঃখের বিষয়, গ্রামীণফোনের যে শেয়ার বাংলাদেশের থাকার কথা, তার অধিকাংশ তিনি বিদেশে দিয়ে ওটাকে সম্পূর্ণ নিজের ব্যক্তিগত সম্পত্তি করে নিয়েছেন। গ্রামীণ ব্যাংকে গ্রামীণফোনের কোনো লভ্যাংশ যায় না। এটা চিটিংবাজি ছাড়া আর কিছু নয়। রীতিমতো ধোঁকা দেওয়া হয়েছে। ৩০ ভাগ মালিকানা নিজের হাতে রেখে বাকিটা বেঁচে দিয়েছেন।

    শেখ হাসিনা বলেন, ‘উনি ট্যাক্সও দেন না। তাঁর প্রচুর টাকা আছে। কোথা থেকে এল এই টাকা। এটা নিয়ে আমি কিছু বলতে চাইনি। এটা অর্থমন্ত্রীর দায়িত্ব। তিনি ব্যবস্থা নেবেন। তিনি মামলা করে রেখে দিয়েছেন। ট্যাক্স না দিয়ে ভালোই চলছেন। কিন্তু আমাদের ক্ষেত্রে পান থেকে চুন খসলে বিশাল আকারে দেখানো হয়। উনাদের ব্যাপারে তেমন কোনো শব্দ শোনা যায় না। জানি না উনাদের বাচনিক ভঙ্গিতে কী ম্যাজিক আছে। তারা আন্তর্জাতিক সংস্থা দিয়ে, যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থা দিয়ে আমার ছেলেমেয়ের বিরুদ্ধে তদন্ত করিয়েছে, কোথাও এতটুকু খুঁত পাওয়া যায় কি না? কিন্তু তারা কিছুই বের করতে পারলেন না। মনে জোরটা ছিল বলেই চ্যালেঞ্জ নিয়েছিলাম। বিশ্বব্যাংকের টাকায় আমরা পদ্মা সেতু করব না।’

    এর আগে জাহাঙ্গীর কবির নানকের সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ক্ষুদ্রঋণের সুদের হার এবং চক্রবৃদ্ধি আকারে তার সুদ এত বেশি দিতে হয় যে একজন মানুষ টাকা নিয়ে কখনো সুদ ৪০ থেকে ৪৫ শতাংশে চলে যায়। যার কারণে ঋণের বোঝায় অনেকে ঘরবাড়িছাড়া হয়ে গেছে, অনেকে এলাকা থেকে অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছে, আত্মহত্যা করেছে। এমনটি সন্তান বিক্রি করেছে। ঋণের জন্য ঘরের চালের টিন খুলে নেওয়া হচ্ছে। গরু-বাছুর কেড়ে নেওয়া হচ্ছে। যার কারণে স্বাবলম্বী হওয়ার পরিবর্তে নিঃস্ব হয়ে ভিটেমাটিছাড়া হয়েছে।

    Media

    Thursday, 26 January 2017 19:43

    ছোটখাট শারীরিক সমস্যা দূর করার জন্য ভেষজ প্রতিষেধক ব্যবহৃত হয়ে আসছে যুগ যুগ ধরেই। প্রাকৃতিক এসব উপাদানের কোনও

    জেনে নিন এমনই কিছু কার্যকর ভেষজ প্রতিষেধক সম্পর্কে-   

     
    • মুখে দুর্গন্ধ? কুসুম গরম পানিতে এক চিমটি দারুচিনি গুঁড়া ও কয়েক ফোঁটা মধু মিশিয়ে গার্গল করুন ৩ মিনিট। দূর হবে দুর্গন্ধ।
    • প্রায়ই ঠাণ্ডা-সর্দি লেগে থাকে আপনার? রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকলে শরীর একটুতেই কাবু হয়ে পড়ে। প্রতিদিন সকালে গ্রিন টি এর সঙ্গে এক চিমটি দারুচিনি গুঁড়া ও ফোঁটা মধু মিশিয়ে পান করুন। এটি আপনার শরীরকে ব্যাকটেরিয়ার বিরুদ্ধে লড়াই করতে সাহায্য করবে।
    • কোলেস্টেরলের পরিমাণ বেড়ে গেলে এক কাপ গ্রিন টি এর সঙ্গে ১ চা চামচ মধু ও দারুচিনি গুঁড়া মিশিয়ে পান করুন।
    • এক মুঠো আমন্ড সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। পরদিন সকালে খোসা ছাড়িয়ে পেস্ট করে এক কাপ দুধের সঙ্গে মিশিয়ে পান করুন। রক্তচাপ অতিরিক্ত কমে গেলে এটি সাহায্য করবে রক্তচাপ বাড়াতে।  
    • গলা ব্যথা ও খুসখুসে ভাব দূর করার জন্য ঘরেই বানিয়ে ফেলতে পারেন ভেষজ প্রতিষেধক। আধা চা চামচ গোলমরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ মধু, ১ চিমটি দারুচিনি গুঁড়া ও ১ চা চামচ আদা গুঁড়া মেশান ৩৫০ মিলি পানিতে। প্রতিদিন সকাল ও সন্ধ্যায় পান করুন এ পানীয়। দূর হবে গলা ব্যথা।

    তথ্য: বোল্ডস্কাই

    পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। তাই নিশ্চিন্তে ছোট রোগব্যাধিকে কাবু করতে পারেন এগুলোর সাহায্যে।

    Media

    Thursday, 26 January 2017 19:28

    শুরুতেই শ্রাবণ প্রকাশনীর স্বত্ত্বাধিকারী রবীন আহসানের কাছে জানতে চাওয়া হয়, বছরের ঠিক এই সময়ই বই প্রকাশের তাড়া কেনো? রবীন আহসান বলেন, ‘এটার প্রথম কারণ হচ্ছে, নিয়মিত বই বিক্রি হওয়ার যে চেইন সেই চেইন আমাদের দেশে না থাকা। আমাদের দেশে শুধু বইমেলাতেই বই বিক্রি হয়। তবে এটার জন্য শুধুমাত্র বইমেলাই দায়ী নয়। বই বিক্রির জন্য অনেকগুলো বইয়ের দোকান না থাকাও দায়ী। তখন সারা বছর বই প্রকাশ করে সঠিকভাবে ডিস্ট্রিবিউশন করা সম্ভব হতো। এছাড়াও বইয়ের মিডিয়া কভারেজ ফেব্রুয়ারি ছাড়া অন্যসময় পাওয়া যায় না। একাণেই আমরা মেলাকেন্দ্রিক। সারা বছর বই বিক্রির ব্যবস্থা গড়ে তোলার দায়িত্ব আসলে কার? এই প্রশ্নের জবাবে তিনি আরও বলেন, এগুলো প্রকাশকরাই করবেন, কিন্তু বইয়ের দোকান থাকতে হবে।
    পাঠক যদি গড়ে না ওঠে তাহলে বইয়ের দোকান কিভাবে গড়ে উঠবে? এই প্রশ্নের জবাবে রবীন আহসান বলেন, রিডিং সোসাইটি না থাকলে সুন্দর সুন্দর বইয়ের দোকান বানালেও বই বিক্রি হওয়া কষ্টকর। সমাজে আস্তে আস্তে রিডিং সোসাইটি কমে যাচ্ছে। রিডিংএর জায়গাটাই নেই। আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থার মধ্যে যদি বই পড়ার সংস্কৃতি গড়ে না ওঠে, শিক্ষকরা যদি ছাত্রছাত্রীকে পাঠ্যবইয়ের বাইরে অন্য আরও বিশটা বই পড়তে উদ্বুদ্ধ না করেন, তাহলে বড় বড় বইয়ের দোকান থাকলেও বই বিক্রি হবে না। রবিন আরও বলেন, একুশে বইমেলা এক শ্রেণির লেখকদের আত্মপ্রেম ও আত্মপ্রচারের জায়গা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এটা বাংলা একাডেমি ঠেকাতে পারছে না।

     

    মাহাবুব রাহমানআদর্শ প্রকাশনীর স্বত্ত্বাধিকারী মাহাবুব রাহমানের কাছে জানতে চাওয়া হয়- অধিকাংশ প্রকাশনী কেনো এক ব্যক্তির পকেট প্রতিষ্ঠানে রূপ নিয়েছে? মাহাবুব বলেন, আমি প্রথমেই বলবো আমার জেনারেশনের কাউকেই দেখিনি যে, প্রস্তুতি নিয়ে প্রকাশনায় নামতে। এটা যে অন্যান্য ব্যবসার মতো একটা ব্যবসা, তা তারা ভাবছে না। প্রকাশনা যে ব্যবসা হয়ে উঠতে পারে সেই সম্পর্কে আমাদের তাদের ধারণা নেই। তবে আমি মনে করি, প্রকাশনায় আসলে একজন প্রকাশককে সর্বপ্রথম ব্যবসার বিষয়টা মাথায় রাখা উচিত। কারণ শিল্প-সাহিত্যের পৃষ্ঠপোষকতার জন্য প্রকাশনা ব্যবসায় আসা কোনো কাজের কথা নয়। তাই এটা ইন্ডাস্ট্রি হয়ে উঠছে না।
    খন্দকার মনিরুল ইসলামএ প্রসঙ্গে ভাষাচিত্র’র স্বত্ত্বাধিকারী খন্দকার মনিরুল ইসলাম বলেন, আমাদের দেশের প্রকাশকদের মধ্যে ৭০ শতাংশ প্রকাশক ইমোশনাল হয়ে প্রকাশনী খুলে বসেছেন। এই ইমোশনাল প্রকাশকদের কারণেই আমাদের প্রকাশনা ব্যবসা গ্রো আপ করেনি। একটা ভালো বই প্রকাশ করার জন্য যেরকম সময় নেওয়া দরকার, যেমন লেখক-প্রকাশক দরকার, তেমন লেখক-প্রকাশক এই দেশে ২০ জনও খুঁজে পাওয়া কঠিন। অথচ প্রতি বছর প্রায় ৫ হাজার বই প্রকাশিত হয়। এই টাকাটা কোথা থেকে আসছে? এটি লেখকদের পকেট থেকেই আসে। যেটা আসলে হওয়া উচিত নয়।
    এই প্রেক্ষিতে রবীন আহসান বলেন, আমাদের অধিকাংশ প্রকাশক সাহিত্যচর্চা করতে এসে প্রকাশক হয়ে গেছেন। তারা ব্যবসার নিয়ম মানে না, জানেও না। যেটা বাংলাদেশের প্রকাশনা শিল্পের জন্য একটি বড় ভয়ের কারণ। তবে প্রকাশকরা বাণিজ্যিকভাবে প্রকাশনী করতে পারছে না কারণ তেমন সমাজ-কাঠামো আমাদের নেই।

    অনেক প্রকাশক বলেন, তারা বইয়ের ব্যবসা করতে এসে দিনের পর দিন লস দিয়ে যাচ্ছেন। তবু আমরা দেখছি, সেইসব প্রকাশনী বছরের পর বছর বহাল তবিয়তে আছেন। এগুলো কিভাবে সম্ভব?

    এই প্রশ্নের জবাবে মাহাবুব বলেন, বর্তমানে ট্রেন্ড এমন যে, যে লেখে তার বন্ধু-বান্ধব, বড় ভাই সবাই মিলে ছাপানোর টাকা দেয়। এবং প্রকাশকরা অধিকাংশ সময় চাপে পড়ে এই বইগুলো ছাপায়।

    শাহ আনোয়ার সাদাততবে কি আসলেই প্রকাশক হতে গেলে তেমন কোনো অভিজ্ঞতার প্রয়োজন নেই? এমন প্রশ্নে  ‘গদ্যপদ্য’ প্রকাশনীর স্বত্ত্বাধিকারী শাহ্ আনোয়ার সাদাত বলেন, একজন প্রকাশকের অন্তত কিছু যোগ্যতা থাকা উচিত। যেহেতু সে বই নিয়ে কাজ করবে সেহেতু তার শিক্ষিত হওয়া প্রয়োজন। কোন বই ছাপানো প্রয়োজন, বইয়ের বানান ঠিক আছে কিনা, বইয়ের মেকআপটা কেমন হবে, সেসব সম্পর্কেও তাদের ধারণা থাকা দরকার। তাই একজন অশিক্ষিত লোকের ক্ষেত্রে একটি ভালো বই প্রকাশ করা সম্ভব না।
    এখন দেখা যায়, অনেকে রাতারাতি প্রকাশক হয়ে যান। যেমন ধরুন, কোনো লেখক তার বই নিয়ে প্রকাশকের কাছে গেলো। প্রকাশক তার বইটি প্রকাশ করতে অসম্মতি জানালো। দেখা গেলো পরের দিন সে নিজেই একটি প্রকাশনী করে ফেললো।
    আড্ডার এই পর্যায়ে, উৎস প্রকাশনীর স্বত্ত্বাধিকারী মোস্তফা সেলিমের কাছে জানতে চাওয়া হয়, এখন কি সেই বাস্তবতা আছে যেমোস্তফা সেলিম, প্রকাশকরা নিজেরাই এমন কলেবরে সফল মেলা করতে পারেন? মোস্তফা সেলিম বলেন, এটা বাস্তবায়ন করা খুবই কঠিন। কারণ প্রকাশকদের মধ্যে একতা নেই। এইরকম একটা প্লাটফর্মে হয়তো সবাই বলবে আমরা সবাই এক থাকবো, কিন্তু প্রাক্টিক্যালি আসলে তারা এক থাকে না। সকল প্রকাশকের ব্যবসায়িক স্বার্থ কিন্তু এক না। বড় প্রকাশকরা যেমন বইমেলায় ব্যবসার জন্য থাকতে চান তেমনি ছোট প্রকাশকরা বইমেলায় থাকতে চান তার অস্তিত্বের জন্য। সুতরাং আক্ষরিক অর্থে প্রকাশকরা ঐক্যবদ্ধ না। সুতরাং প্রকাশকরা চাইলেই তাদের মতো করে মেলা করা সম্ভব না।
    এ প্রসঙ্গে রবীন আহসান বলেন, বইমেলা বাংলা একাডেমিরই করা উচিত। কারণ বইমেলার নামটি হল একুশে বইমেলা এবং বাংলা একাডেমি এই মেলাটাকে বহুবছর ধরে চর্চা করে একটি জায়গায় এনেছে। তবে এজন্য তাদের একটি শক্তিশালী মনিটরিং সেল করা উচিত। যারা সারা বছরই এই মেলা নিয়ে ভাববে।

    সৈকত হাবিবএকই কথা প্রসঙ্গে প্রকৃতির স্বত্ত্বাধিকারী সৈকত হাবিব বলেন, প্রথমত আমি বলবো, এই মেলাটি একটি স্বতঃস্ফূর্ত মেলা। এই মেলার গুরুত্ব আমাদের বাঙালির কাছে অপরিসীম। পৃথিবীর সকল বইমেলার দিকে তাকালে দেখা যাবে, সে সকল বইমেলা করে প্রকাশক গিল্ড। কিন্তু আমাদের দেশে সেটা হয় না। কেন হয় না সেটার কারণ রয়েছে এবং প্রেক্ষাপটও রয়েছে। তবে আমাদের দেশে এখন সেটা সম্ভবও নয়। এজন্য যে, আমাদের দেশের প্রকাশকদের মধ্যে একতা নেই, এবং একটি ভালো পাঠকসমাজও গড়ে ওঠেনি।
    এদিকে, বাংলা একাডেমি প্রায় প্রতি বছরই স্টল ফি বাড়াচ্ছে। কিন্তু মেলার পরিবেশ বা নিরাপত্তা  সন্তোষজনকভাবে বাড়েনি। সব মিলিয়ে দুই ইউনিটের একটি স্টলের পেছনে দেড় লাখ টাকা খরচ হয়। এর বাইরে প্রকাশকের নিজের শ্রম তো আছেই। শেষে হিসেব করে দেখা যায় পুরোটাই অলাভজনক মেলা।
    মুম রহমাননতুন প্রকাশক ‘ক্রিয়েটিভ ঢাকা’র স্বত্ত্বাধিকারী মুম রহমান বলেন, আমার জানা নেই, বাংলাদেশে এমন কোনো প্রকাশনী আছে কি না- যারা আগামী পাঁচ বছরে কি কি বই প্রকাশ করবে তার পরিকল্পনা আগে থেকেই করে রাখে। কিন্তু প্রকাশনা ব্যবসায় এটা থাকা উচিত। আমি ক্রিয়েটিভ ঢাকা করেছি এখন পর্যন্ত আমার এগারোটা বই প্রকাশিত হয়েছে, আগামী পাঁচ বছরে আমি কি কি বই প্রকাশ করবো সেটি আমার মাথায় আছে। প্রকাশককে শুধু প্রকাশক হলেই চলে না। বই সম্পর্কে তার ধারণা থাকা জরুরী। তাকে ভালো পাঠকও হতে হয়।
    আসলে মূল সমস্যা হল, আমরা বইকে প্রয়োজনীয় করে তুলতে পারছি না। বাংলাদেশে প্রতিটি মহল্লায় নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দোকান যেমন আছে, সৌখিন জিনিসের দোকানও রয়েছে। কিন্তু বইয়ের দোকান প্রতি মহল্লায় নেই।
    খন্দকার মনিরুল ইসলাম বলেন, নির্দিষ্ট কয়েকজন লেখকের বই নানা শিরোনামে অনেক প্রকাশনী প্রকাশ করছে। সূচিপত্রে দেখা যাবে তাতে খুব বেশী পার্থক্যও নেই। এইসব লেখকের বই সবাই করেন এজন্য যে, সরকার বা বিভিন্ন সংস্থা যখন প্রকাশকদের কাছে থেকে বই কেনেন, তখন নাম দেখে কেনেন, বইয়ের কনটেন্ট দেখে কেনেন না। তাই সবাই জ্যেষ্ঠ বা বাজারে কাটতি আছে এমন লেখকের বই যেকোনো ভাবেই প্রকাশ করতে চান। লেখকও বাধা দেন না। বই কেনার এইসব অলিখিত নীতি বদলাতে হবে।

    আড্ডা শেষে প্রকাশকরা আশা প্রকাশ করেন, পারিবারিকভাবে পাঠাভ্যাস গড়ে উঠলে এবং মানুষ তার যেকোনো প্রয়োজনে বইকে প্রয়োজনীয় করে তুলতে পারলে বইয়ের দোকান বাড়বে, সারা বছর কোথাও না কোথাও বড় আকারে মেলা হবে।

    Media

    Thursday, 26 January 2017 19:26
    ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো না লিওনেল মেসি- সময়ের সেরা ফুটবলার কে তা নিয়ে আলোচনা সমর্থকদের আলোড়িত করলেও তাতে একেবারেই নির্বিকার রিয়াল মাদ্রিদ তারকা রোনালদো। সেরার প্রশ্নে তার সঙ্গে বার্সেলোনা ফরোয়ার্ডের তুলনা করার বিষয়টিকেও খুব একটা গুরুত্ব দিচ্ছেন না এই পর্তুগিজ ফুটবলার।
    ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো না লিওনেল মেসি- সময়ের সেরা ফুটবলার কে তা নিয়ে আলোচনা সমর্থকদের আলোড়িত করলেও তাতে একেবারেই নির্বিকার রিয়াল মাদ্রিদ তারকা রোনালদো। সেরার প্রশ্নে তার সঙ্গে বার্সেলোনা ফরোয়ার্ডের তুলনা করার বিষয়টিকেও খুব একটা গুরুত্ব দিচ্ছেন না এই পর্তুগিজ ফুটবলার।
     
    এমনকি দুজনের মধ্যে ‘কে সেরা’ তুলনা করাতেই আপত্তি চারবারের বর্ষসেরা ফুটবলারের। তার মতে, তারা দুজনই দারুণ ফুটবলার।
     
    গত বছর ক্লাবের হয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ও দেশের হয়ে ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপ জেতা রোনালদো মেসিকে হারিয়ে ২০১৬ সালের ব্যালন ডি’অর ও দ্য বেস্ট ফিফা মেনস প্লেয়ার পুরস্কার জিতেন।
     
    গত নয় বছর ধরেই বর্ষসেরা ফুটবলার এই দুইজনই। আর্জেন্টিনা অধিনায়ক মেসি মোট পাঁচবার বর্ষসেরা ফুটবলারের পুরস্কার জিতেছেন।

    Media

    logo